Friday, August 15, 2008

শোক দিবস সম্পর্কে কিছু কথা

আজ সেই ভয়াল কালরাত্রি। যে রাতে সদ্য স্বাধীন এক গণতান্ত্রিক রাষ্ট্রের জননায়ককে সেই দেশেরই স্বাধীনতাবিরোধী তথা সাম্প্রদায়িক শক্তি স্বপরিবারে নৃশংসভাবে হত্যা করে রাষ্ট্রপতির নিজ আবাসস্থলে। আজ ৩২ বছরেও সেই মর্মান্তিক ঘটনার কোনো সুবিচার দেখেনি বাংলার জনগণ। বিচারকার্য শুরু হলেও দোষী ব্যক্তিরা আজো বিদেশে পালিয়ে গিয়ে নির্দ্বিধায় দিনাতিপাত করছে। বাংলার জনগণ কি আদৌ দেখবে না দোষীরা উপযুক্ত শাস্তি পাক এই বাংলার মাটিতেই? নাকি এসব নরপিশাচরা স্বাধীনভাবে দিন কাটিয়ে সুখে শান্তিতে এই পৃথিবী ত্যাগ করবে? পাপের কি কোনো ফল ঘটবে না?
আজ তবুও একটা ব্যাপার দেখে খুব ভালো লাগল যে, বর্তমান তত্ত্বাবধায়ক সরকার আজ ১৫ই আগষ্টকে সরকারীভাবে আবারো শোক দিবস হিসেবে ঘোষণা করেছে, যা গত জোট সরকারের আমলে বন্ধ ছিল এবং আওয়ামী সরকার আমলে শুরু হয়েছিল। আরো স্বস্তির খবর এই যে, ফখরুদ্দীন সাহেব ও ইয়াজউদ্দিন সাহেব দু'জনেই টুঙ্গীপাড়া গিয়ে বঙ্গবন্ধুর মাজারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে তাদের শোক বার্তা জাতির সামনে প্রকাশ করেছেন।
এখন সামনের দিকে তাকিয়ে থাকা। কখনো কি হবে দোষীদের উপযুক্ত বিচার? কখনো কি "এবারের সংগ্রাম মুক্তির সংগ্রাম, এবারের সংগ্রাম স্বাধীনতার সংগ্রাম" কথাটির বক্তাকে অন্যায়ভাবে হত্যা করার বিচার দেখবে বিশ্ব? কখনো কি শিশু-কিশোর আবারো শিখবে পাঠশালায় যে, এই যে তাদের স্বাধীন মাটিতে বিচরণ এর মূল নায়কের প্রকৃত ইতিহাস? নাকি বিকৃত হতে হতে একসময় মুছেই যাবে ইতিহাসের এই মহানায়কের নাম?

No comments:

Post a Comment